কুতুবদিয়ায় সীমানা প্রাচীর ধসে নিহত এক, আহত দুই শিশু

কুতুবদিয়া প্রতিনিধি: কুতুবদিয়ায় মসজিদের সীমানা প্রাচীর ও দরজার পিলার ধসে পড়ে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। একই ঘটনায় আহত হয়েছে আরো দু‘শিশু। বৃহস্পতিবার (২০ এপ্রিল) বিকাল সাড়ে তিন টার দিকে উপজেলা সদর বড়ঘোপ আরব সিকদার পাড়ায় এ হতাহতের ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও হাসপাতাল সূত্র জানায়, বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে বড়ঘোপ ইউনিয়নের আরফ সিকদার পাড়াস্থ জামে মসজিদের সীমানা দেয়ালের পাশে স্থানীয় বেলাল উদ্দিন ড্রাইভারের মেয়ে জামিয়া আক্তার (৭) সহ আরো ২/৩ টি শিশু খেলা করছিল। এসময় হঠাৎ সীমানা দেয়ালের দরজার নড়বড়ে পিলারটি ধসে পড়ে শিশুদের উপর। স্থানীয় বাসিন্দাদের সহায়তায় গুরতর আহত অবস্থায় শিশুদেরকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মো. শাহ ইমরান চৌধুরী জামিয়া আক্তার নামের শিশুটি মৃত বলে জানান। একই গ্রামের অপর দু‘শিশু বদিউল আলমের পুত্র হাবিবুল হাসান (৫) ও গুনুছ এর মেয়ে তন্বী (১১) কে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয় বলে হাসপাতাল সূত্র জানায়।

এদিকে মসজিদের সীমানা দেয়াল ভেঙ্গে স্কুল ছাত্রী নিহতের ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। পাশাপাশি মসজিদের সীমানা দেয়াল নির্মাণে কোন ধরনে রড-সিমেন্ট ব্যবহার না করায় মসজিদ পরিচালনা কমিটির প্রতি ক্ষোভ জানিয়ে এলাকাবাসী বলেছে, ইটের উপর ইট দিয়ে দায়সারাভাবে সীমানা দেয়াল নির্মান করায় অনাকাংকিত ঘটনার আশংকা ছিল অনেক আগে থেকেই। ২০ এপ্রিল (বৃহষ্পতিবার) সে আশংকার বাস্তবায়ন হয়েছে।

অপর দিকে দেয়ালের পিলার ধসে পড়ে হতাহতের ঘটনার খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (অ.দা) আবু হাসনাত মো: শহিদুল হক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোস্তাফিজুর রহমান ভুঁইয়া বলেন, মসজিদের দেয়ালের পিলার ধসে পড়ার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে নিহত শিশুর পিতা-মাতা ও এলাকাবাসির সাথে কথা বলেছেন। দেয়ালের পাশে খেলা করতে গিয়ে নিছক দূর্ঘটনায় মারা যাওয়ায় নিহত শিশুর মা-বাবার অনুরোধে লাশ তাদেরকে বুঝিয়ে দেন বলে তিনি জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: