আবারও উত্তাল কাশ্মির, নিহত ৫

বিশ্বময় ডেস্ক: কাশ্মিরে ভারতীয় সেনা ক্যাম্পে ভোরের আলো ফুটতে না ফুটতেই আত্মঘাতী হামলায় তিন সেনাসদস্য নিহত হয়েছেন। সেনাসদস্যদের পাল্টা হামলায় দুই জঙ্গি প্রাণ হারান। এছাড়া এক সেনা কর্মকর্তাসহ ছয় সেনা জওয়ান আহত হয়েছেন।

হামলার পরপরই পাল্টা হামলায় অন্তত দুজন জঙ্গিকে হত্যা করা হয়েছে বলে জানিয়েছে ভারতীয় সেনাবাহিনীর মুখপাত্র কর্নেল রাজেশ কালিয়া। তিনি জানান, ঘটনার পর থেকে পুরো এলাকা জুড়ে তল্লাশি চালানো হচ্ছে। বাকি দুই জঙ্গির খোঁজে চিরুণী তল্লাশি শুরু হয়েছে গোটা এলাকায়। জঙ্গিরা জৈশ-ই-মহম্মদের সদস্য। তবে এটি আত্মঘাতী হানা কি না সে বিষয়ে কোনও মন্তব্য করা হয়নি।

আজ বৃহস্পতিবার ভোর চারটে নাগাদ অত্যাধুনিক অস্ত্রে সজ্জিত চার আত্মঘাতী জঙ্গির একটি দল অতর্কিতে এই সেনা শিবিরে হামলা চালায় বলে জানিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যম। সংবাদ সংস্থা সূত্রের খবর, নিয়ন্ত্রণ রেখা থেকে পাঁচ কিলোমিটার দূরে থাকা এই সেনা শিবিরে জঙ্গি হামলায় বাহিনীর এক মেজর, এক কমিশনার অফিসার ও এক জওয়ান নিহত হয়েছেন।

কাশ্মিরের সবচেয়ে উত্তরের জেলা কুপওয়ারা এলাকায় আজ বৃহস্পতিবার ভোরে ঘটনাটি ঘটেছে, সেটি নিয়ন্ত্রণ রেখার কাছে এবং পুরো এলাকাটিতে ব্যাপক সেনা উপস্থিতি রয়েছে। কুপওয়ারা জেলার যেখানে ক্যাম্পটি রয়েছে সেটি আসলে গ্যারিসন টাউন বা সেনা ছাউনির শহর।

গত ৯ এপ্রিল থেকে কাশ্মির জুড়ে ব্যাপক সহিংসতা চলছে। কাশ্মিরের জন্য সামরিক নয় বরং একটি রাজনৈতিক সমাধান দরকার বলে মনে করেন অনেকে। একটি সংসদীয় উপনির্বাচনকে কেন্দ্র করে শুরু হওয়া ওই সহিংসতায় এ পর্যন্ত নিরাপত্তা বাহিনীর সাথে সংঘর্ষে অন্তত দশজন নিহত হয়েছে। এর মধ্যেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে সেনা অভিযান সহ নানা পদক্ষেপ নিয়েছে ভারতীয় কর্তৃপক্ষ। বন্ধ করে দেয়া হয়েছে ফেসবুক, টুইটার সহ সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমগুলো।

উল্লেখ্য, গত বছর ১৮ সেপ্টেম্বর কাশ্মিরের উরি সেনা ছাউনিতে এমনই আত্মঘাতী জঙ্গি হামলায় মৃত্যু হয়েছিল ১৯ জন জওয়ানের। জঙ্গিদের সঙ্গে টানা ছয় ঘণ্টার গুলির লড়াইয়ে আহত হয়েছিলেন প্রায় ৩০ জন জওয়ান। সেই হানারও দায় স্বীকার করেছিল নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন জৈশ-ই-মহম্মদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: