ভারতে গুপ্তচর সন্দেহে বাংলাদেশি আটক

ডেস্ক : ভারতে গুপ্তচর সন্দেহে এক বাংলাদেশিকে আটক করেছে দেশটির সীমান্ত পুলিশ। আইটিবিপি (Indo-Tibetan Border Police) গত ৪ মে চীন সীমান্তবর্তী লেপচা নিরাপত্তা চৌকির কাছ থেকে তাকে আটক করে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অফ ইন্ডিয়া মঙ্গলবার জানায়, আইটিবিপি ওই ব্যক্তিকে ঘুমন্ত অবস্থায় আটক করে। পরে তাকে স্পিতি পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, আটকের পর প্রথমদিকে সে বোকার ভান করে। পুলিশকে বোঝাতে চেষ্টা করে যে সে মহারাষ্ট্র থানা থেকে এসেছে। মিথ্যে পরিচয় দিলেও সেই ব্যক্তির বাংলা, ইংরেজি এবং হিন্দি ভাষার দক্ষতা দেখে পুলিশ আশ্চর্য হয়ে যায়। পরে জিজ্ঞাসাবাদের একপর্যায়ে ওই ব্যক্তি নিজেকে বাংলাদেশি বলে স্বীকার করে।

তার বিরুদ্ধে জাতীয় নিরাপত্তা লঙ্ঘন এবং রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগ আনা হয়েছে। লাহাউল স্পিতির এস পি রমন কুমার জানিয়েছেন, ‘ওই ব্যক্তি নিজের নাম মোহাম্মদ এম হোসেন বলে দাবি করেছেন। তবে আরও তথ্য জানতে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।’

পুলিশ ওই ব্যক্তির কাছ থেকে একটি মোবাইল ফোন সেট উদ্ধার করেছে। তাদের ধারণা মোবাইলটি বাংলাদেশের তৈরি। তার কাছে একটি সিম কার্ডও ছিল। কিন্তু সেটি নষ্ট বলে জানিয়েছে পুলিশ। এছাড়াও হোসেন নামক ব্যক্তির কাছ থেকে ম্যাপ, কিছু ময়দা এবং টমেটো সস পায় পুলিশ।

তার বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ১২৩, ১২৪এ ধারায় অভিযোগ আনা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। আদালতে তোলার পর তাকে আগামী ১০ মে পর্যন্ত পুলিশের হেফাজতে রাখার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। রমন কুমার জানিয়েছেন, আটক ব্যক্তিকে তারা বাংলাদেশি হিসেবে সন্দেহ করলেও পরিচয় সম্পর্কিত কোনো কাগজপত্র তার সঙ্গে ছিল না। তাই তার পরিচয় সম্পর্কে এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: