১০ মাসের শিশুর বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র!

ডেস্ক:  মিরপুর থানার একটি মারামারি ও চুরির মামলায় মো. রুবেল নামে একজনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দেওয়া হয়েছে। রুবেল আত্মসমর্পণ করে ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম (সিএমএম) আদালতে জামিন নিতে গেলে হতবাক হয়ে যান সেখানকার আইনজীবী ও আদালতের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। কেননা, রুবেল বলে যাকে আসামি করে অভিযোগপত্র দেওয়া হয়েছে তার বয়স মাত্র ১০ মাস। আর ঘটনার সময় রুবেলের বয়স ছিল মাত্র ২৮ দিন। খবর প্রথম আলো।

শিশুটিকে গত ৩০ এপ্রিল হাজির করার পর তার আইনজীবীর আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে মামলার তদন্ত কর্মকর্তাকে আদালত তলব করেছেন। শিশুটির মা-বাবার সঙ্গে কথা বলে এবং আদালত সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে। মামলাটি তদন্ত করেন মিরপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মারুফুল ইসলাম। মারুফুল বলেন, তিনি গুরুতর অসুস্থ হয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি আছেন। কথা বলতে পারবেন না।

শিশু রুবেলের মা শামীমা আক্তার বলেন, তাঁর দুই ছেলে ও দুই মেয়ে। বড় ছেলে নবম শ্রেণিতে পড়ে। আর ছোট ছেলে রুবেলের বয়স ১০ মাস।

মামলার এজাহারে বলা হয়, গত বছরের ২৬ জুন মধ্য পাইকপাড়ার আবুল কাশেম (৫৩), তাঁর দুই ছেলে রুবেল (৩০), তুষারসহ (১৯) ২৩ জন আসামি অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে তাঁর জমি দখল করতে আসেন। আসামিরা তাঁর দোচালা ঘরের টিন ভেঙে ফেলেন। ঘর থেকে সোনার চেইনসহ ২৫ হাজার টাকা চুরি করে নিয়ে তাঁকে হুমকি দেন আসামিরা।

শিশু রুবেলকে কেন আসামি করা হলো, জানতে চাইলে বাদী হাবিবুর রহমান প্রথম আলোর কাছে দাবি করেন, রুবেল নামের ৩০ বছরের একজন আসামি তাঁর বাড়িতে হামলা চালিয়েছিলেন। মামলায় ভুল করে অন্য রুবেলের পরিবর্তে আবুল কাশেমের ছেলে শিশু রুবেলকে আসামি করা হয়েছে। তিনি বলেন, এটা বড় ধরনের ভুল। তিনি চান শিশুটি হয়রানি থেকে মুক্তি পাক।

মিরপুর থানার ওসি নজরুল ইসলাম প্রথম আলোকে বলেন, ‘আমাদের ভুল হয়েছে তাতে কোনো সন্দেহ নেই। কেন ছয় মাসের শিশুর বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দেওয়া হয়েছে, তার ব্যাখ্যা এসআই মারুফ দেবেন।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: