দুর্নীতি মামলায় কক্সবাজারের সাবেক জেলা প্রশাসক রুহুল আমিন কারাগারে

ডেস্ক: দুর্নীতি মামলায় কক্সবাজারের সাবেক জেলা প্রশাসক রুহুল আমিনকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

সোমবার কক্সবাজারের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্টেট তৌফিক আজিজ রুহুল আমীনের জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠান।

কক্সবাজারের মহেশখালীর মাতারবাড়ি কয়লা-বিদ্যুৎ প্রকল্পের ২০ কোটি টাকা দুর্নীতি মামলার প্রধান আসামি সাবেক এই জেলা প্রশাসক।

রুহুল আমিন এতোদিন হাইকোর্ট থেকে চার সপ্তাহের জন্য আগাম জামিনে ছিলেন। উচ্চ আদালতের আগাম জামিনের মেয়াদ শেষে সোমবার কক্সবাজারে চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট তৌফিক আজিজের আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন চান। আদালত জামিন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠান।

এ মামলায় এখন পর্যন্ত পাঁচজন আসামি কারাগারে রয়েছে।

জানা যায়, মাতারবাড়ি কয়লা-বিদ্যুৎ প্রকল্পের জন্য অধিগ্রহণ করা জমির বিপরীতে ভুয়া মালিকানা তৈরি করে ক্ষতিপূরণের প্রায় ২০ কোটি টাকা আত্মসাত করেন মামলার আসামিরা।

এ ঘটনায় মাতারবাড়ির কায়সার চৌধুরী বাদী হয়ে কক্সবাজারের তৎকালীন জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ রুহুল আমিন, এডিসি জাফরসহ ২৩ জন সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীর বিরুদ্ধে কক্সবাজার জেলা জজ আদালতে মামলা করেন। আদালত মামলাটি তদন্তের জন্য দুদককে দায়িত্ব দেয়। দুদক উক্ত মামলার তদন্তের কাজ শেষ করে গত ৩ মে আদালতে অভিযোগপত্র (চার্জশিট) দাখিল করে। এতে কক্সবাজারের তৎকালীন জেলা প্রশাসক রুহুল আমিন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক জাফর আলম, সার্ভেয়ার, কানুনগোসহ ১৩ জন সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারী ও ২৩ জন স্থানীয় বাসিন্দাসহ মোট ৩৬ জনকে অভিযুক্ত করা হয়।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা দুদকের উপ-পরিচালক সৈয়দ আহমেদ রাসেল বলেন, মহেশখালীর কয়লা-বিদ্যুৎ প্রকল্পের আওতায় অধিগ্রহণ করা জমির বিপরীতে ২৩৭ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ নির্ধারণ করা হয়। এর মাঝে ২৫টি অস্তিত্বহীন চিংড়ি ঘের দেখিয়ে ৪৬ কোটি ২৪ লাখ ৩ হাজার ৩২০ টাকা ক্ষতিপূরণ নিজেদের করায়ত্তে নেয় এবং কক্সবাজার ভূমি অধিগ্রহণ শাখার উচ্চমান সহকারী আবুল কাশেম মজুমদারের নেতৃত্বে ৩৬ জনের একটি সিন্ডিকেট। উক্ত অর্থ থেকে এ সিন্ডিকেট কৌশলে ১৯ কোটি ৮২ লাখ ৮ হাজার ৩১৫ টাকা তুলে নেয়। বাকী টাকার জন্য ইস্যু করা হয়েছিল আরও পাঁচটি চেক। তবে মামলা করার পর পাঁচটি চেকের আওতায় নির্ধারিত ক্ষতিপূরণের বাকী টাকা আটকে দেওয়া হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

%d bloggers like this: